“বৃদ্ধাশ্রম” একটি সামাজিক মূল্যবোধের ছবি

নির্মাতা হিসেবে আত্মপ্রকাশ করলেন সংগীত শিল্পী এস, ডি, রুবেল। অভিনয়ের পাশাপাশি বৃদ্ধাশ্রম ছবির পরিচালনাও করছেন এই শিল্পী। সরকারি আনুদানের ছবিটির গল্পও রুবেলের লেখা। দেশের সংগীত শিল্পীদের মধ্যে কেউ কেউ নাম লিখিয়েছেন অভিনয় কিংবা মডেলিংয়ে। কারো আবার দুই মাধ্যমেই সমান উপস্থিতি। তাদেরই একজন সঙ্গীতশিল্পী এস,ডি, রুবেল। প্রযোজনা করেছেন নাটক-টেলিফিল্ম ।

নায়িকা শাবনুরের সাথে এভাবেই ভালবাসা হয় ছবিতে অভিনয় দিয়ে চলচ্চিত্রে অভিষেক হয় এস ডি রুবেলের। অভিনয়ে আগ্রহ থাকলেও ভালো স্ক্রিপ্টের জন্যই সিনেমায় কাজ করা হয়নি। ছয় বছর পর দ্বিতীয়বারের মতো অভিনয় করলেন বৃদ্ধাশ্রম সিনেমায়। আর এই ছবি দিয়ে নির্মাতা হিসেবে আত্মপ্রকাশ করলেন এই শিল্পী। এরই মধ্যে হাত দিয়েছেন তৃতীয় সিনেমার কাজে।

কথা বলেছেন নিজের লেখা বৃদ্ধাশ্রম ছবিটির গল্প নিয়ে। যেখানে তুলে ধরা হয়েছে সামাজিক অবক্ষয়ের কথা। রুবেল মনে করেন চলচ্চিত্রে পৃষ্ঠপোষকতা নেই বলেই এগুতে পারছে না বাংলা সিনেমা। আগামীতে দর্শকদের ভালো কিছু উপহার দিতে চান এস,ডি, রুবেল ।

ছবিটি প্রসঙ্গে তিনি বলেন,আশা করি এই সপ্তাহের দিকে ছবিটি সেন্সরে জমা দেওয়া হবে। ‘এটা শুধু লাভ স্টোরি কিংবা সোশ্যাল ছবি নয়, সামাজিক মূল্যবোধের অবক্ষয়ের বিরুদ্ধে এ ছবির অবস্থান। আশা করছি আমার ছবিটি দেখে দর্শক হতাশ হবেন না।’

আরও খবর